আরো সংবাদমহিলা দল

ফ্রান্স মহিলা দলের সভা: খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তি দাবি

সোমবার ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০।। ১৬.০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের ৪২তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভা করেছে জাতীয়তাবাদী মহিলা দল ফ্রান্স শাখা।

সভায় বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তি দাবি করা হয়।

রোববার (১৩ সেপ্টেম্বর) এই ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব ও সঞ্চালনা করেন ফ্রান্স মহিলা দলের সভানেত্রী মমতাজ আলো।

যিনি মহিলা দলের কেন্দ্রীয় আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদিকাও।

ভার্চুয়াল সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মহিলা দলের কেন্দ্রীয় সভানেত্রী আফরোজা আব্বাস।

আরো বক্তব্য রাখেন মহিলা দলের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদিকা হেলেন জেরিন খান, ইউরোপের বিভিন্ন দেশের মহিলা দলের নেতৃবৃন্দের মধ্যে

ফ্রান্স মহিলা দলের সাধারণ সম্পাদিকা ফেরদৌসী শিউলি, সাংগঠনিক সসম্পাদিকা হালিমা আক্তার, আয়েশা আক্তার, সুমি আক্তার, মাকসুদা রুমি, কানিজ ফাতিমা, সোনিয়া আক্তার।

জার্মান থেকে সেলি মিয়া, বেলজিয়াম থেকে নাহিদা আক্তার, ফিনল্যান্ড থেকে মহিলা দলের নেত্রী কলি মবিন, ইতালি থেকে ফাহিমা আক্তার মুকুল, লায়লা শাহ,

ডক্টর সেলিমা আফরোজ, সুইজারল্যান্ড থেকে মেহনাজ পারভিন মুক্তি, সুইডেন থেকে হাসিনা জাহান, নেদারল্যান্ড থেকে জুনু আক্তার, রুনা আলামীন,

যুক্তরাজ্য থেকে ডালিয়া লাকুরিয়া, অঞ্জনা আলম, নাসরিন হাসান, লুনা সাবিরা, আরজুমান মুন্নি,

পর্তুগাল থেকে খাদিজা বেগম, কানাডা থেকে রেহানা আক্তার, কবিতা নূর এবং বাংলাদেশ থেকে তাহামিনা সেন, খালেদা সুলতানা প্রমুখ।

আরো পড়ুন: চট্টগ্রাম মহানগর মহিলা দলের সভাপতি মনোয়ারা বেগম মনি

প্রধান অতিথি আফরোজা আব্বাস বেগম খালেদা জিয়ার উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশ গমনের উদ্দেশ্যে নিঃশর্ত মুক্তির জোর দাবি জানান।

তিনি বলেন, অনেক সরকারি লোক এমনকি দাগী-আসামীরা পর্যন্ত বিনা শর্তে বিদেশে উন্নত চিকিৎসা নিচ্ছে। তাহলে বেগম খালেদা জিয়ার ক্ষেত্রে কেনো শর্ত দেয়া হবে?

তিনি বলেন, বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা শহীদ জিয়াউর রহমান বাংলাদেশের কোটি কোটি মানুষের হৃদয়ে অবস্থান করছেন।

তিনি শুধু বিএনপির প্রতিষ্ঠাতাই নন, একজন সফল রাষ্ট্রপতি। তিনি রণাঙ্গণের মুক্তিযোদ্ধা, বাংলাদেশের স্বাধীনতার ঘোষক।

হেলেন জেরিন খান বলেন, উন্নত চিকিৎসায় কারো জন্য বিমানের ফ্লাইট রেডি থাকে আর কারো জন্য শর্ত আরোপ করে ঘরে বসিয়ে রাখা হবে। এটা কোন ধরণের গণতন্ত্র?

তিনি বলেন, প্রাণঘাতী করোনা নিয়ে সরকার এখনো উদাসীন। সরকারের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রীর আবোল-তাবোল বক্তব্যে জনগণ হতাশ।

সভাপতির ভাষণে মহিলা দলের কেন্দ্রীয় আন্তর্জাতিক সম্পাদিকা ও ফ্রান্স শাখার সভানেত্রী মমতাজ আলো বলেন, চিকিৎসার সুযোগ যে কারো মৌলিক অধিকার।

তাই কে কোথায় চিকিৎসা নেবে, কার কাছে যাবে, কোথায় যাবে তার কোনো শর্ত থাকা কোনোভাবেই উচিত নয়।

তিনি বলেন, জিয়াউর রহমানের নাম মুছে ফেলার জন্য সরকার সবকিছু করছে। কোনো আইন করেই শহীদ জিয়ার নাম বাংলাদেশের ইতিহাস থেকে মুছে ফেলা যাবে না।

কারণ বাংলাদেশের মানুষ সত্যিকারের ইতিহাস জানে। জোর জবরদস্তি করে মানুষের মন থেকে কারো নাম মুছে ফেলা যায় না।

আমাদের ফেসবুক পেজ লাইক করুন: https://www.facebook.com/Polnewsbd/

Tags

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × 2 =

Back to top button
Translate »
Close
Close