আরো সংবাদবিশ্ব রাজনীতিলীড

অনলাইনে ৮ দেশের সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্য

১২ অক্টোবর ২০২০।। ২১.০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

বিশ্বের ৮ টি দেশের শিক্ষকদের অংশগ্রহণে আন্ত:দেশীয় সাংস্কৃতিক বৈচিত্র বিনিময়ে অনলাইনে অনুষ্ঠিত হয় ‘ইনট্যানজিবল কালচারাল হেরিটেজ’ শীর্ষক বর্ণাঢ্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

আন্তর্জাতিক শিক্ষক দিবস এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষ্যে শিক্ষা মন্ত্রণালয়, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং

এটুআই-এর যৌথ উদ্যোগে ৬ মাসব্যাপী অনুষ্ঠানের অংশ হিসেবে উক্ত অনুষ্ঠান সোমবার আয়োজন করা হয়।

আরো পড়ুন: এম এম গ্রুপ অব কোম্পানির বিরুদ্ধে অপপ্রচার

অনুষ্ঠানে ৮টি দেশের শিক্ষকগণ তাদের স্ব-স্ব দেশের ইনট্যানজিবল কালচারাল হেরিটেজগুলোর বৈচিত্র প্রদর্শন করেন।

উল্লেখ্য, শিক্ষা মন্ত্রণালয়, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ এবং মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ-এর বাস্তবায়নাধীন ও ইউএনডিপি’র সহায়তায়

পরিচালিত এটুআই প্রোগ্রামের যৌথ উদ্যোগে বিশ্বের ১০০টি দেশের শিক্ষক, শিক্ষা অফিসার, গবেষক এবং শিক্ষা সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিবর্গকে নিয়ে

‘শিক্ষক: সংকটে নেতৃত্ব, নতুন করে ভবিষ্যতের ভাবনা’ শীর্ষক ৬ মাসব্যাপী আয়োজিত অনুষ্ঠানের এটি ছিলো প্রথম সাংস্কৃতিক পর্ব।

প্রায় ২১টি সেমিনার, ৫টি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং ৬টি সাইড ইভেন্টস-এর সমন্বয়ে আয়োজিত এ অনুষ্ঠান আগামী ১৭ মার্চ, ২০২১ সালে শেষ হবে।

চট্রগ্রাম প্রেসিডেন্সি ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের ইংরেজি শিক্ষক মো মহিউদ্দিনের তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠানে ভারতের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ‘কালামকারি’ উপস্থাপন করেন অদিতি কালকারনি,

রাশিয়ান সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ও আধ্যাত্মিক সংগীত ‘তুবান’ ও ‘খুরেশ’ উপস্থাপন করেন নাদেজদা ইয়্যুভানোভা, ভারতীয় সংস্কৃতির বৈচিত্র্য তুলে ধরেন সাব্বির পারভেজ,

তুরস্কের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ‘তুর্কি কফি’ উপস্থাপন করেন দেরিয়া চ্যুইল্যান, দক্ষিণ অফ্রিকান সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য তুলে ধরেন এলিয়ট মাশিনিনি,

পাকিস্তানের ঐতিহ্য ‘কেলাশা সংস্কৃতি’ সম্পর্কে তুলে ধরেন মুহাম্মদ আসিফ ইকবাল, ভারতের প্রাচীন ধর্মীয় উৎসব কুম্ভমেলা সম্পর্কে উপস্থাপন করেন সন্ধ্যা মিশ্র।

ক্রোয়েশিয়ার ঐতিহ্যগত সংস্কৃতি তুলে ধরেন সেনজানা কোভাকেভিক, মরক্কোর প্রাচীন রেসিপি ‘কসকোয়াস’ উপস্থাপন করেন আসমাই নাসরি।

কানাডার সংস্কৃতিতে ভারতীয় নাচের প্রভাব তুলে ধরেন ইন্দ্রানি চৌধুরী এবং বাংলাদেশের ঐতিহ্য জামদানির কথা তুলে ধরেন মো মহিউদ্দিন।

অনলাইনের এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন এটুআই-এর প্রকল্প পরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) ড. মোঃ আব্দুল মান্নান, পিএএ।

অতিথি ছিলেন ইউনেস্কো ঢাকা অফিস-এর প্রোগ্রাম অফিসার কিজি তাহনিন এবং এটুআই-এর এডুকেশনাল টেকনোলজি এক্সপার্ট মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম।

আমাদের ফেসবুক পেজ লাইক করুন: https://www.facebook.com/Polnewsbd/

Tags

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fourteen − nine =

Back to top button
Translate »
Close
Close